অর্ধশতাব্দীর বেশি সময় ধরে লিখে আসছেন ছোট-বড় হাজারো পত্রিকায় । কবি, ছড়াকার, প্রাবন্ধিক । বহু গ্রন্থের প্রণেতা, একাধিক পত্রিকার সম্পাদক, অবসরপ্রাপ্ত সরকারি চিকিৎসক ও আধিকারিক ।

স্বাধীনতা তিয়াত্তর

এনেছি দুহাতে, রক্তে
পুজো করে
                   রাখতে পারিনি।
সেই যে কে পুঁতেছিল চারা
আজ থেকে তিয়াত্তর সূর্যোদয়ে , ভোরে
বড় বেশি ম্রিয়মাণ, তাকে
উজ্জীবিত করাই গেল না ।
কে যেন বাজিয়েছিল বাঁশি
আমরা শুনেছি, শুনে
                             ছুটে গেছি, তবু
বেশি দূর এগোতে পারিনি ।
প্রস্তর-আকীর্ণ পথে কারা
               হেঁটেছিল, ধুলো উড়েছিল
                      পথে, পদচ্ছাপ
কবেই মিলিয়ে গেছে, পাখি
                 গান আর গাইতে পারল না।
রক্ত দিয়ে যাকে ফিরিয়েছি
       তাকেই এ অবেলায় আজ
               জলেতে ভাসাই। ভেলা ডোবে ….
দুপাশে অনন্ত বন, পথ
              নেই! পায়ে জড়ানো শৃঙ্খল।
আমরা আজও দাঁড়াতে পারিনি ….