বেআব্রু

নির্জন দুপুরে কাছে আসে পলাশ
জ্বরের ঠোঁটে গাঢ় হয় রঙ
উত্তাপে বয়ে যায় লাভা
মেঘ বাতাসের আকাশে
উড়ন্ত চিল ছুঁয়ে দিতেই
ঝুপ করে ঝরে পড়ে
না বলা কথার সাতকাহন
ভাঁটার টানে ক্রমশঃ দূরে
সরে যায় সমুদ্র
ঝিনুক কুড়োতে গিয়ে দেখি
পলাশের বদলে যাওয়া চাহনি
তখন ফিরতি পথ ধরে
আজন্ম মোতিহীন খোল
আমিও সামলে নিয়েই দেখি
দূরে সরে যাচ্ছে পথঘাট ,
ট্রেনের জানলা জুড়ে তখন
বেরঙা পলাশ ও বেআব্রু বসন্ত ॥